ব্রেকিং:
দেশ-বিদেশ যেখান থেকেই হোক, গুজব ছড়ালে ব্যবস্থা : তথ্যমন্ত্রী কোভিড-১৯ টেস্ট: সরকারের পূর্ণ সহযোগিতা পাচ্ছে গণস্বাস্থ্য করোনা সংকট সামলাতে ডিজিটাল ম্যাপ সমৃদ্ধের উদ্যোগ শবেবরাতের মাহাত্ম্যে মানবকল্যাণে প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান চীনের কাছে চিকিৎসক-ভেন্টিলেটর চেয়েছে বাংলাদেশ, সহায়তার আশ্বাস চীন থেকেই চালু হয় হারেমে একাধিক রক্ষিতা রাখার প্রথা! ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে কলেজছাত্রীকে কীটনাশক খাইয়ে হত্যার চেষ্টা অনলাইনে পরীক্ষা ও ভর্তি বন্ধে ইউজিসি’র আহ্বান করোনা ঠেকাতে স্বেচ্ছায় লকডাউনে তিনগ্রাম স্বাস্থসেবীদের জন্য সিএমপি`র ফ্রি বাস সার্ভিস দেশের জন্য আগামী ৩০ দিন আরো ঝুঁকিপূর্ণ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী ওষুধের দোকান ছাড়া সন্ধ্যার পর সব বন্ধ রাখার নির্দেশ করোনায় আর্থিক সহায়তা পাচ্ছে জার্মানরা কমলনগরে সূর্যের হাসি ক্লিনিকটি বন্ধ গত ১০ দিন করোনা সংকট: দুর্নীতির শঙ্কায় বিএনপিকে না বললেন ড. ইউনূস করোনা আতঙ্কে বন্দুক কিনছে মার্কিনিরা ৯ মিনিটের জন্য অন্ধকারে ভারত এসএসসির ফল চলে যাবে অভিভাবকদের মোবাইলে রাসূলকে (সা.) স্বপ্নে দেখার আমল খাবার নিয়ে অসহায় মানুষের সৌরভ গাঙ্গুলি
  • শুক্রবার   ১০ এপ্রিল ২০২০ ||

  • চৈত্র ২৭ ১৪২৬

  • || ১৬ শা'বান ১৪৪১

২৪

অবশেষে নিয়ন্ত্রণে আসছে করোনাভাইরাস!

আলোকিত লক্ষ্মীপুর

প্রকাশিত: ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

চীন থেকে ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস অবশেষে নিয়ন্ত্রণে আসছে। চীনের বিশেষজ্ঞ ডা. ঝং নানশান বলেছেন, আমরা নিশ্চিত যে এপ্রিলের শেষের দিকে মূলত করোনভাইরাস নিয়ন্ত্রণে আসবে।

চীনের ন্যাশনাল ক্লিনিক্যাল রিসার্চ সেন্টারের সাবেক এ পরিচালক আরো বলেন, প্রথম দিকে যদি কর্তৃপক্ষ জোরালোভাবে কাজ করত তাহলে এ রোগের সংক্রমণের খুব বেশি হতো না। তবে তিনি আগেই জানিয়েছিলেন যে, এ রোগের প্রাদুর্ভাব ফেব্রুয়ারির মাঝামাঝি সময়ে সর্বোচ্চ হবে।

গত ১৫ ফেব্রুয়ারি থেকে সংক্রমণের সংখ্যার সংখ্যা হ্রাস পাচ্ছে বলে তিনি এক সংবাদ সম্মেলনে জানান তিনি।

এদিকে এখন পর্যন্ত দুই হাজার ৮০৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। আক্রান্ত হয়েছে ৮২ হাজার ১৬৬ জন। এখন পর্যন্ত ৩৩ হাজার ২০৬ জন চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। শুধমাত্র চীনের মূল ভূখণ্ডেই করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৭৮ হাজার ৪৯৭। অপরদিকে দেশটিতে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে দুই হাজার ৭৪৪ জন।

চীনের বাইরে করোনাভাইরাসে সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের সংখ্যা দক্ষিণ কোরিয়ায়। দেশটিতে এখন পর্যন্ত এক হাজার ৫৯৫ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। সেখানে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে ১৩ জন।

অপরদিকে, ইউরোপের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। ভয়াবহ এ ভাইরাসে ইতালিতে এখন পর্যন্ত ৬৫০ জনের আক্রান্তের খবর পাওয়া গেছে। বৃহস্পতিবার সকালেও এ সংখ্যা ছিল ৪০০। দেশটিতে করোনাভাইরাসে মারা গেছেন ১২ জন।

এ ছাড়াও অস্ট্রিয়া, ক্রোয়েশিয়া ও সুইজারল্যান্ডেও ছড়াচ্ছে এ ভাইরাস। ফ্রান্স ও জার্মানিতেও করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে।

আলোকিত লক্ষ্মীপুর
আলোকিত লক্ষ্মীপুর
আন্তর্জাতিক বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর
//