ব্রেকিং:
প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে বিশ্ব ক্যারমে পঞ্চম হেমায়েত মোল্লা বিয়ের আগে একমাত্র কন্যাকে নিয়ে স্মৃতিচারণ মিথিলার চর মার্টিনে নেতৃত্বে আসতে চান বেলায়েত সকল সমুদ্র বন্দরের সংযোগ নেটওর্য়াক হবে ভোলা-লক্ষ্মীপুর সেতু লক্ষ্মীপুরে গুলিবিদ্ধ দুই যুবকের মরদেহ উদ্ধার লক্ষ্মীপুরে প্রতিবন্ধী দিবসে র‌্যালি ও সভা রামগঞ্জ উপজেলা শ্রেষ্ঠ প্রধান শিক্ষক শামছুল ইসলাম প্রতিবন্ধীদের নিয়ে ‘নেতিবাচক মানসিকতা’ পরিহার করুন: প্রধানমন্ত্রী যুব গোল্ডকাপ ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্ট উদ্বোধন ১৫ ডিসেম্বর থেকে ই-পাসপোর্ট চালু: পররাষ্ট্রমন্ত্রী কৃষিজাত পণ্য রফতানি করতে চাই: কৃষিমন্ত্রী গণতন্ত্র মুক্তি দিবস আজ সন্ধ্যায় সৃজিত-মিথিলার বিয়ে কাঁচা মাছ, মাংস, লতাপাতা খেয়েও স্বাভাবিক আছেন অদ্ভুত এই ব্যক্তি! কাতারে বাংলাদেশি হাফেজদের কৃতিত্বপূর্ণ সাফল্য সোনা কেনার সময় যা খেয়াল রাখা খুব জরুরি হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর মৃত্যুবার্ষিকী আজ বাংলাদেশের হজ কোটা বাড়াল সৌদি আরব সেরা কে? মুখ খুললেন অনুশকা আওয়ামী লীগের ২১তম কাউন্সিল হবে সাদামাটা

শনিবার   ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ২২ ১৪২৬   ০৯ রবিউস সানি ১৪৪১

৮১৪

গ্রাহক সচেতনতায় লক্ষ্মীপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির উঠান বৈঠক

প্রকাশিত: ২৮ নভেম্বর ২০১৯  

দুর্নীতি, দুর্ঘটনা, হয়রানি, অনিয়ম ও চুরি প্রতিরোধে উঠান বৈঠকের আয়োজন করেছে লক্ষ্মীপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি। সদর উপজেলার পালের হাট পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয়ের শ্রেণী কক্ষে মঙ্গলবার বিকেল ৫টায় এ বৈঠকের আয়োজন করা হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন, সমিতির ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (ডিজিএম-টেকনিক্যাল) খান মোহাম্মদ বোরহান, সহকারী জেনারেল ম্যানেজার (এমএস) এসএমজি এলমান শাহ্, এলাকা পরিচালক ইসমাঈল হোসেন, ইসি আলাউদ্দিন, ওয়্যারিং পরিদর্শক মো. রফিকুল ইসলাম প্রমুখ।

আলোর ফেরিওয়ালা নামক এ বৈঠকে ডিজিএম খান মোহাম্মদ বোরহান বলেন, গ্রাহকদের মাঝে বিদ্যুতের সেবা প্রদানে সমিতির বদ্ধপরিকর। গ্রাহকদের তাদের কাঙ্খিত সেবা পেতে আগে সমিতির কার্যালয়ে যেতে হতো। কিন্তু এখন সমিতি গ্রাহকের দ্বারে দ্বারে এসে সেবা পৌঁছে দিচ্ছে।

তিনি বলেন, দালাল হতে গ্রাহকদের সতর্ক থাকতে হবে। বিভিন্ন প্রলোভনে দালালচক্র গ্রাহকদের কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নিচ্ছে। এতে প্রতারিত হচ্ছে গ্রাহকরা। বিদ্যুৎ প্রত্যাশী সাধারণ গ্রাহকরা সরাসরি কার্যালয়ে গেলে কম খরচে এবং হয়রানিমুক্ত বিদ্যুৎ সংযোগ পাবে।

তিনি আরও বলেন, নিন্ম মানের ক্যাবল ব্যবহারের ফলে আগুন লাগার সম্ভাবনা থাকে। মানসম্পন্ন বৈদ্যুতিক মালামাল দিয়ে ঘর ওয়্যারিং করলে বিদ্যুৎ খরচ কম হয়।

তিনি জানান, আগে বিদ্যুতের ব্যাপক ঘাটতি ছিলো। ফলে প্রতিনিয়ত লোড শেডিং হতো। কিন্তু বর্তমান ‘সরকারের উদ্যোগ, ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ’। তাই প্রয়োজনের চেয়েও বেশি বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে। সরকারের দেওয়া ভর্তুকির বিদ্যুৎ গ্রাহকদের অপ্রয়োজনীয় কাজে ব্যবহার না করে লাভজনক কাজে ব্যবহারের চেষ্টা করতে হবে।

তিনি বলেন, নতুন সংযোগের ক্ষেত্রে তিনটি ধাপ পালন করতে হয়। সেগুলো হলো- মান সম্পন্ন ওয়্যারিং, প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জমাদান এবং জামানত প্রদান করা।

লক্ষ্মীপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি সূত্র জানায়, দালাল কর্তৃক গ্রাহক হয়রানি এবং বিদ্যুৎ জনিত দুর্ঘটনা প্রতিরোধে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে বিভিন্ন সভা-সমাবেশের আয়োজন করে সমিতি। জেলার বিভিন্ন প্রত্যন্ত গ্রামের জনসাধারণের উপস্থিতিতে বিদ্যুৎ সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়। আর আলোর ফেরিওয়ালার মাধ্যমে সাধারণ গ্রাহকদের মাঝে হয়রানিমুক্ত বিদ্যুৎ সংযোগ প্রদান করা হচ্ছে।

আলোকিত লক্ষ্মীপুর
আলোকিত লক্ষ্মীপুর
এই বিভাগের আরো খবর
//