ব্রেকিং:
করোনার ওষুধ আবিষ্কার, বাজারে ছাড়ার অনুমতি! দুই হাজার ৪৬ জনকে নিয়োগ দেবে বাংলাদেশ ব্যাংক বাংলাদেশে অবস্থানরত চাইনিজদের কি করা উচিত ?? রামগঞ্জে ভ্রাম্যমান সমবায় প্রশিক্ষণ ধর্মীয় শিক্ষা নিশ্চিত করতে ‘মশিগশি’ প্রকল্পের কর্মশালা রামগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধা যাচাই বাছাই কার্যক্রম স্থগিত সদর সার্কেলের এএসপি’র বিদায় সংবর্ধণা রামগঞ্জ থানার ওসির ব্যতিক্রমি উদ্যেগ ট্রলি চাপায় চালকের করুণ মৃত্যু মায়ের কাছে চিঠি লিখলো কেয়ার এডুকেশনের শিক্ষার্থীরা কমলনগরে প্রতিবন্ধিদের মাঝে হুইল চেয়ার বিতরণ কিশোরী গণধর্ষণ মামলায় তিন আসামি গ্রেপ্তার খালেদার কয়লাখনি দুর্নীতি মামলার অভিযোগ গঠন ২৯ মার্চ করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১,৮৬৮ টাকা-পয়সা নয়, ওদের টার্গেট ছোট যানবাহন মার্চ থেকেই ‘অ্যাডভেঞ্চার অফ সুন্দরবন’র যাত্রা শুরু করোনাভাইরাস কেড়ে নিলো উহান হাসপাতালের পরিচালককেও হত্যার ভয় দেখিয়ে মাদরাসাছাত্রকে বলাৎকার, ধরা খেলেন শিক্ষক বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে লেখা বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করলেন প্রধানমন্ত্রী সন্তান বিক্রি করে অপহরণ নাটক সাজান বাবা!
  • মঙ্গলবার   ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ||

  • ফাল্গুন ৬ ১৪২৬

  • || ২৩ জমাদিউস সানি ১৪৪১

প্রাথমিকে শিক্ষকের শূন্যপদ ২৯ হাজার

আলোকিত লক্ষ্মীপুর

প্রকাশিত: ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

সারাদেশে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর প্রায় ২৮ হাজার ৮৩২ জন শিক্ষকের পদ শূন্য রয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন। 

তিনি আরো জানান, প্রধান শিক্ষকের শূন্যপদের সংখ্যা ৭ হাজার ১৮টি। আর সহকারী শিক্ষকের শূন্যপদ ২১ হাজার ৮১৪ জন। সহকারী শিক্ষকের শূন্যপদ পূরণে এরইমধ্যে চূড়ান্ত নির্বাচিত প্রার্থীদের যোগদানের জন্য পরিপত্র জারি করার হয়েছে।

মঙ্গলবার জাতীয় সংসদের অধিবেশনে নোয়াখালী-৩ আসনের এমপি মো. মামুনুর রশীদ কিরণের টেবিলে উত্থাপিত লিখিত প্রশ্নের উত্তরে প্রতিমন্ত্রী এসব তথ্য জানান। অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী বলেন, দেশের ৬৪টি জেলার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের ৭ হাজার ১৮টি পদ শূন্য রয়েছে। এরমধ্যে পদোন্নতি যোগ্য শূন্যপদ ৪ হাজার ১৬৬টি, সরাসরি নিয়োগের যোগ্য শূন্যপদ ২ হাজার ৮৫২টি। আর ২৫ শতাংশ বা সরাসরি নিয়োগের জন্য ৩৭ তম বিসিএস থেকে নিয়োগের জন্য ২০১৯ সালের ২৬ জন প্রয়োজনীয় তথ্য বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশনের নির্ধারিত ফরমে মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়েছে। 

তিনি বলেন, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষকদের প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতির বিষয়ে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক নিয়োগ বিধিমালা-২০১৩, অধিগ্রহণকৃত বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক (চাকরির শর্তাদি নির্ধারণ) বিধিমালা-২০১৩ ও নন ক্যাডার কর্মকর্তা-কর্মচারী জ্যেষ্ঠতা ও পদোন্নতি বিধিমালা-২০১১ নীতিমালা অনুযায়ী প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি দেয়া হয়েছে। তবে আদালতে মামলা থাকায় প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি বন্ধ রয়েছে। তবে জ্যেষ্ঠ সহকারী শিক্ষককে প্রধান শিক্ষকের চলতি দায়িত্ব দেয়া হচ্ছে। 

প্রতিমন্ত্রী জানান, ৬১টি জেলায় সহকারী শিক্ষকের ১৮ হাজার ১৪৭ টি পদ পূরণের জন্য ২০১৯ সালের ২৪ ডিসেম্বর চূড়ান্তভাবে নির্বাচিতদের নিয়োগপত্র জারি করা হয়েছে। যথাশিগগির এসব শিক্ষক কর্মস্থলে যোগ দেবেন। 

এছাড়া তিন পার্বত্য জেলায় জেলা পরিষদের তত্ত্বাবধানে স্থানীয়ভাবে শিক্ষক নিয়োগ করা হয় বলে জানান তিনি। 

আলোকিত লক্ষ্মীপুর
আলোকিত লক্ষ্মীপুর
শিক্ষা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর
//