ব্রেকিং:
লক্ষ্মীপুরে ৯০০ পিস ইয়ায়বাসহ যুবক আটক সাউথবাংলা এগ্রিকালচারাল এন্ড কমার্স ব্যাংকের শাখা উদ্বোধন সাজাপ্রাপ্ত ছলিম উদ্দিন পুলিশের জালে আটক সাজাপ্রাপ্ত আসামী পুলিশের জালে আটক রায়পুরে পানিবন্দী ১০ ইউপির মানুষ পেশীর টান? প্রতিকারের সহজ উপায় কম গ্যাস খরচ করে রান্নার সেরা কৌশল! স্ত্রীদের সঙ্গে রাসূল (সা.) এর আচরণ ও বিনোদন ধর্ষকের সাজা কমাতে কোটি টাকার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান তরুণীর দুঃসময়ের নেতাদের নেতৃত্বে আনা হবে: কাদের আজ ভয়াল ১২ নভেম্বর মিয়ানমারের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক আদালতে গাম্বিয়ার মামলা যেভাবে ঘটে দুই ট্রেনের সংঘর্ষ (ভিডিও) ট্রেন দুর্ঘটনায় আহতদের প্রচুর রক্তের প্রয়োজন দুই ট্রেনের সংঘর্ষের ঘটনায় তদন্ত কমিটি গঠন যুক্তরাজ্যে গাঁজা দিয়ে তৈরি হচ্ছে ওষুধ সেন্টমার্টিনে আটকা পর্যটকদের আনতে তিন জাহাজ ৯৯৯ এ কল, পুলিশ-কোস্টগার্ডের অভিযানে ৩০ জীবন রক্ষা সুন্দরবনে পর্যটক প্রবেশ বন্ধ গৃহবধূ ধর্ষণের ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়ানোয় আটক ১২

মঙ্গলবার   ১২ নভেম্বর ২০১৯   কার্তিক ২৮ ১৪২৬   ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

৪২

শিক্ষার্থীদের থেকে বাড়তি ফি নিলে এমপিও বাতিল

প্রকাশিত: ২৭ অক্টোবর ২০১৯  

শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে ভর্তি ও টিউশন বাবদ অতিরিক্ত ফি আদায় করা হলে বাতিল হতে পারে প্রতিষ্ঠানের এমপিও। অভিযোগ গুরুতর হলে শিক্ষকদের চাকরি থেকে বরখাস্ত করার নতুন একটি নীতি প্রণয়ন করছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। 

গত বুধবার নতুন করে অনেক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করার পর এ বিষয়ে আলোচনা করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের একটি সূত্র জানায়, অনেক এমপিওভুক্ত প্রতিষ্ঠান শিক্ষার্থী ভর্তির সময় বেশি টাকা নেয়। এসব টাকা টিউশন ফি হিসেবে নেয়া হয়। এমপিও সুবিধা পাওয়ার পরও যেসব প্রতিষ্ঠান শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে বেশি টাকা নেবে, তালিকা করে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। 

মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, বেশি অর্থ আদায় করা প্রতিটি প্রতিষ্ঠান পরিচালনা কমিটির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। প্রয়োজনে অভিযুক্ত প্রতিষ্ঠানটির এমপিও বাতিল করা হবে। নভেম্বর থেকেই শুরু হবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান মনিটরিং । 

এ বিষয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের জ্যেষ্ঠ সচিব মো. সোহরাব হোসাইন বলেন, যেসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভূক্ত করা হয়েছে, তারা কোনোভাবেই অতিরিক্ত ফি আদায় করতে পারবে না। মন্ত্রণালয় এ ব্যাপারে কঠোর হচ্ছে। অনুমোদিত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কতজন শিক্ষার্থী ভর্তি করবে সেটা আগে থেকেই আমাদেরকে জানাতে হবে। এর বেশি শিক্ষার্থী ভর্তি করা হলে সেসব প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। প্রয়োজনে তাদের অনুমোদন বাতিল করা হবে।

রাজধানীর বেশ কয়েকটি নামকরা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থী ভর্তিতে বাড়তি ফি আদায়ের অভিযোগ রয়েছে। এছাড়া এসব প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ আছে। ঢাকার বাইরের চিত্র আরো ভয়াবহ বলে জানিয়েছে শিক্ষা সম্পর্কিত বেশ কয়েকটি মাধ্যম। ২০২০ শিক্ষাবর্ষ থেকে এসব প্রতিষ্ঠানগুলোতে নজরদারি ও তদারকি করবে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। মন্ত্রণালয়ের মাসিক সমন্বয় সভায় এসব সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের একজন কর্মকর্তা জানান, শিক্ষার্থী ভর্তিতে যেসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গত বছর অনিয়ম করেছে তাদেরও তালিকা তৈরি করা হয়েছে। এই তালিকা ধরেও আগামী শিক্ষাবর্ষে ব্যবস্থা নেয়ার পরিকল্পনা রয়েছে। 

এ ব্যাপারে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, যারা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যুক্ত আছেন তারা যেন নিজেদেরকে ব্যবসায়ী না ভাবেন। এমন ভাবনা দেশের জন্য ক্ষতিকর। শিক্ষার্থীদের সামর্থ্য জানতে হবে এবং তাদের সবাইকে সমানভাবে শিক্ষার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিতে হবে। যেসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষাকে ব্যবসা হিসেবে গণ্য করছেন, আমরা তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেব। 

উল্লেখ্য, গত বুধবার দুই হাজার সাতশ ত্রিশটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর মধ্যে স্কুল ও কলেজের সংখ্যা ১ হাজার ৬৫১টি, মাদরাসা ৫৫৭টি এবং কারিগরি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ৫২২টি।

আলোকিত লক্ষ্মীপুর
আলোকিত লক্ষ্মীপুর
এই বিভাগের আরো খবর
//