ব্রেকিং:
চার বছর পর সচিবদের সঙ্গে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী মাওলানা ত্বহার হোয়াটসঅ্যাপ-ভাইভার অন; বন্ধ মোবাইল ফোন কে এই মাওলানা ত্বহার ২য় স্ত্রী সাবিকুন নাহার? আওয়ামীলীগের ধর্মীয় উন্নয়নকে ব্যাহত করতে ত্বহা ষড়যন্ত্র স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের ছবি ব্যবহার করে ফেসবুকে প্রতারণা লক্ষ্মীপুরে করোনা উপসর্গে প্রবাসীর মৃত্যু! লক্ষ্মীপুরে কৃষকের ধান কেটে দিলেন নির্বাহী কর্মকর্তা লক্ষ্মীপুরে করোনা রোগী ৩৭ জন : নতুন করে শিশুসহ আক্রান্ত ৩ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক করোনায় আক্রান্ত করোনার তাণ্ডবে প্রাণ গেল ২ লাখ ১১ হাজার মানুষের মারা যাওয়া তরুণের করোনা নেগেটিভ, তিন ভাই বোনের পজেটিভ লক্ষ্মীপুরে কৃষকের ধান কেটে বাড়ি পৌঁছে দিল এডভোকেট নয়ন লক্ষ্মীপুরে ত্রাণের সাথে ঘরও পেল লুজি মানসম্মত কোন ধাপ অতিক্রম করেনি গণস্বাস্থ্যের কিট পরিস্থিতি ঠিক না হলে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত সব স্কুল-কলেজ বন্ধ বিভিন্ন থানার পুলিশ সদস্যদের সাথে পুলিশ সুপারের ভিডিও কনফারেন্স লক্ষ্মীপুরে আরো ৩ জনের করোনা পজেটিভ আপনিকি করোনা পরীক্ষায় গণস্বাস্থ্যকেন্দ্রের কিট ব্যবহারের বিপক্ষে? লক্ষ্মীপুরে ধান কেটে কৃষকের ঘরে পৌঁছে দিল ছাত্রলীগ লক্ষ্মীপুরে ২০০০ পরিবার পেল উপহার সামগ্রী
  • শনিবার   ২০ আগস্ট ২০২২ ||

  • ভাদ্র ৫ ১৪২৯

  • || ২১ মুহররম ১৪৪৪

প্রয়োজনের তুলনায় বেশি কেনায় দামে প্রভাব পড়েছে: বাণিজ্যমন্ত্রী

আলোকিত লক্ষ্মীপুর

প্রকাশিত: ১৮ মার্চ ২০২০  

প্রয়োজনের তুলনায় বেশি পণ্য কেনার কারণে তা খুচরা বাজারের দামে কিছুটা প্রভাব পড়েছে বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। 


বুধবার সচিবালয়ে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ তথ্য জানান। 

বাজারে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যসহ সব ধরনের পণ্যের মজুদ, সরবরাহ ও মূল্য পরিস্থিতি নিয়ে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। 

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেয়ায় জনগণ আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে। তারা হঠাৎ করে প্রয়োজনের তুলনায় বেশি পণ্য ক্রয় করছে। তাই গত দুই দিনে খুচরা বাজারের দামে কিছুটা প্রভাব পড়েছে। 

গত দুই দিন এ অস্থিরতা তৈরি হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, তবে পাইকারি বাজারে কোনো পণ্যের দাম বাড়েনি।

এসময় আতঙ্কিত হয়ে ভোক্তাদের প্রয়োজনের অতিরিক্ত পণ্য না কেনার আহ্বান জানান টিপু মুনশি। 

তিনি বলেন, করোনাভাইরাসের কারণে নিত্যপণ্য আমদানিতে কোনো ধরনের প্রভাব পড়েনি। এ জন্য অন্যান্য বছরের তুলনায় এবার ২৫ থেকে ৩০ শতাংশ পণ্য বেশি রয়েছে। তাই প্রয়োজনের অতিরিক্ত পণ্য কিনে অযথা অস্থিরতা সৃষ্টি করবেন না।

বাজারে কোন পণ্যে মজুদ ও সরবরাহে ঘাটতি নেই বলেও জানান বাণিজ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, অতিরিক্ত পণ্য কিনে অহেতুক বাজারে অস্থিরতা তৈরি করবেন না। প্রত্যেকটি পণ্যের যথেষ্ট মজুদ আছে। 

তিনি আরো বলেন, জনগণ মনে করতে পারে সমস্যা হবে, কিন্তু আসলে কোনো সমস্যা হবে না। কারণ, করোনায় নিত্যপণ্য আমদানিতে কোন প্রভাব পড়েনি। বরং অন্যান্য বছরের চেয়ে ২৫ থেকে ৩০ শতাংশ আমদানি বেশি হয়েছে। কাজেই আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই।

আসন্ন রমজানে অন্যান্য বছরের তুলনায় ৭ থেকে ১০ গুণ বেশি পণ্য নিয়ে টিসিবি মাঠে থাকবে বলেও জানান বাণিজ্যমন্ত্রী।

 
আলোকিত লক্ষ্মীপুর
আলোকিত লক্ষ্মীপুর
//